বুধবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১২:১৬ অপরাহ্ন

দেশের বিভিন্ন জায়গায় প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে। যোগাযোগ: ০১৭১১৫৭৬৬০৩
সংবাদ শিরোনামঃ
দুটি আর্ন্তজাতিক স্বীকৃতি পেলেন প্রথম সারির করোনা যুদ্ধা জহিরুল হক বিল্লাল আর্ন্তজাতিক স্বীকৃতি পেলেন এড. মো: আয়ুবুর রহমান ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় মাদকসহ আটজন গ্রেপ্তার কর্মকর্তার অবহেলায় গৃহহীনরা পায়নি প্রধানমন্ত্রীর উপহারের ঘর!  বর্ষাকালে ত্বকের সুস্থতার জন্য প্রয়োজনীয় পরামর্শ গুরুদাসপুরে পীরপাল মাজার শরীফের অর্থআত্মসাত ও গাছ কেটে নেওয়ার অভিযোগ সাবেক খাদেমের বিরুদ্ধে নাসিরনগরে ” বৃক্ষ রোপন কর্মসূচি” পালিত ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় আসামীর ছুরিকাঘাতে দারোগা নিহত কেবল মাইকেই স্বাস্থ্যবিধির প্রচারণা, বাস্তবে উল্টো চিত্র! ভ্রুণ হত্যাকারী প্লাবনের গ্রেপ্তার দাবীতে নাসিরনগরে মানববন্ধন
আখাউড়া স্থলবন্দর দিয়ে বাংলাদেশ-ভুটানের আমদানি-রপ্তানি বাণিজ্যের পথ সুগম করতে হবে : স্থলবন্দর পরিদর্শনকালে ভুটানের চার্জ দ্যা এফেয়ার্স

আখাউড়া স্থলবন্দর দিয়ে বাংলাদেশ-ভুটানের আমদানি-রপ্তানি বাণিজ্যের পথ সুগম করতে হবে : স্থলবন্দর পরিদর্শনকালে ভুটানের চার্জ দ্যা এফেয়ার্স

এইচ.এম. সিরাজ, ব্রাহ্মণবাড়িয়া
বাংলাদেশে নিযুক্ত ভুটানের চার্জ দ্যা এফেয়ার্স মি. কিজেং ওয়াং চং ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়াস্থ দেশের দ্বিতীয় বৃহত্তম স্থলবন্দর পরিদর্শন করেছেন।  আজ শনিবার সকালে স্থলবন্দর পরিদর্শন, ব্যবসায়ী ও কাস্টমস কর্মকর্তাদের সাথে মতবিনিময় করেন।

মতবিনিময় শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে মি. কিজেং ওয়াং চং বলেন, ভুটান বাংলাদেশের প্রতিবেশী বন্ধু রাষ্ট্র। সার্কভুক্ত দেশ হিসেবে দু’দেশের মধ্যে চমৎকার সম্পর্ক রয়েছে। ভুটানের অনেক শিক্ষার্থী বাংলাদেশে পড়শোনা করছে।  দুই দেশের মধ্যে বাণিজ্য সম্পর্ক আরো বৃদ্ধি করা প্রয়োজন। এছাড়াও এই বন্দর দিয়ে ভুটানে কী ধরনের পণ্যসামগ্রী আমদানি-রপ্তানি করা যেতে পারে তা খতিয়ে দেখা এখন সময়ের দাবী। আখাউড়া স্থলবন্দর দুই দেশের বাণিজ্যে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে বলেও মনে করেন তিনি। এসময় তিনি আরো বলেন, ভুটান-বাংলাদেশ দুই দেশের সম্প্রীতির বন্ধন রয়েছে। সুতরাং দু’দেশের মধ্য আখাউড়া স্থলবন্দর দিয়ে ব্যবসায়ীরা যেনো ভুটানের সঙ্গে সহজ ও সুন্দরভাবে পণ্য সামগ্রী আমদানি-রপ্তানি বাণিজ্য করতে পারেন, সে লক্ষ্যে প্রয়োজনীয় সব ধরণের ব্যবস্থা নেয়া হবে।  এ সময় তিনি কাস্টম, ইমিগ্রেশন, নো-ম্যান্সল্যাণ্ড, স্থলবন্দর এলাকা ঘুরে দেখেন এবং সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের কাছ থেকে বিভিন্ন সুবিধা-অসুবিধা, সমস্যা-সম্ভাবনা ও প্রতিবন্ধকতা সম্পর্কে অবহিত হন।

এ সময় আখাউড়া-কসবা সার্কেলের জ্যেষ্ঠ সহকারি পুলিশ সুপার মো. আবদুল করিম, আখাউড়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা তাহমিনা আক্তার রেইনা, আখাউড়া স্থলবন্দর সহকারী পরিচালক মোস্তাফিজুর রহমান, কাস্টমস রাজস্ব কর্মকর্তা মোহাম্মদ আলী, আখাউড়া থানার ওসি রসুল আহম্মদ নিজামী, ইমিগ্রেশন কর্মকর্তা আব্দুল হামিদ,আখাউড়া স্থলবন্দর সিএন্ডএফ এজেন্ট অ্যাসোসিশেনের সাবেক সাধারণ সম্পাদক মনির হোসেন বাবুল প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

শেয়ার করুন...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Design: About IT
x Close

ফেসবুকে আমাদের সাথে থাকুন

Shares
CrestaProject